বাংলাদেশে উবার বৈধ, বললেন কর্মকর্তা

বর্ষপূর্তিতে উবারের ভারত ও দক্ষিণ এশিয়ার হেড অব সেন্ট্রাল অপারেশন প্রদীপ পরমেশ্বরন বলেন, “আমরা বৈধ।”

একবছর আগে চালুর ছয় মাসের মধ্যে এশিয়া-প্যাসিফিক অঞ্চলে সবচেয়ে দ্রুত উবারবান্ধব শহরের তালিকায় উঠে আসে ঢাকা। উবারের জনপ্রিয়তার ধারায় স্থানীয় কিছু প্রতিষ্ঠানও অ্যাপভিত্তিক পরিবহন সেবা নিয়ে আসে। এগুলোর মধ্যে রয়েছে পাঠাও, স্যাম, চলো, আমার বাইক, আমার রাইড, ময়ুর, ওয়েজ।

শুরুতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ এসব সেবাকে অবৈধ বললেও দ্রুত জনপ্রিয় হয়ে ওঠা এসব পরিবহন সেবা বন্ধ না করে নীতিমালা করার কাজে হাত দেয় সরকার।

শিগগিরই এই নীতিমালা পাওয়ার আশা প্রকাশ করে প্রদীপ পরমেশ্বরন বলেন, “উবার বাংলাদেশে নিবন্ধিত একটি প্রতিষ্ঠান, এটা অবৈধ নয়। আমরা (বাংলাদেশের) আইনের মধ্যে থেকেই পরিচালনা করছি।”

খসড়া নীতিমালার বিষয়ে বিস্তারিত কিছু না বললেও এ কাজে ‘উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি’ হয়েছে বলে জানান তিনি।

“এটি (নীতিমালা) দ্রুতই হয়ে যাবে বলে আমরা আশাবাদী এবং এটি এই খাতকে আরও এগিয়ে নিয়ে যাবে।”

ঢাকায় রাইড শেয়ারিং কোম্পানি উবারের এক বছর পূর্তি উপলক্ষে রোববার হোটেল সোনারগাঁওয়ে অনুষ্ঠানে উবার ইন্ডিয়া অ্যান্ড সাউথ এশিয়ার প্রেসিডেন্ট অমিত জৈন। ছবি: দীপু মালাকার

বাংলাদেশে এক বছরের অভিজ্ঞতাকে ‘ইতিবাচক’ বললেও এ সময়ে তাদের আয়ের ব্যাপারে কোনো তথ্য দিতে অপারগতা জানান তিনি।

“আমি এটা বলতে পারব না। আমরা এখনও বিনিয়োগের পর্যায়ে আছি,” বলেন প্রদীপ।

উবারের পর স্থানীয়ভাবে চালু অ্যাপভিত্তিক সেবাগুলোকেও স্বাগত জানান তিনি।

উবারের এই কর্মকর্তা বলেন, “আমাদের প্রাথমিক লক্ষ্য হচ্ছে ব্যক্তিগত গাড়ির বিকল্প সেবা দেওয়া এবং আমরা একা এই কাজ করতে পারব না। অন্যদেরও দরকার। সামষ্টিকভাবে হলে এটি বাজারে গতি আনবে। অনেক মানুষকে এখানে পাওয়াটা আনন্দের।”

ঢাকার পর চট্টগ্রাম ও সিলেটেও সেবা চালুর পরিকল্পনা রয়েছে উবারের। পাশাপাশি ‘উবারপুল’ নামের একটি সেবাও চালুর চিন্তাভাবনা চলছে। এটি চালু হলে একজন গ্রাহক উবারের গাড়ি নিলে তার সাথে আরো কয়েকজনও ওই গাড়িতে ভ্রমণ করতে পারবেন। এতে রাইড এবং খরচও ভাগাভাগির সুবিধা পাওয়া যাবে।

ঢাকার নামার দুই মাসের মাথায় ভাড়া বাড়ানোর ঘোষণা দেয় উবার। অন্যান্য দেশের চেয়ে বাংলাদেশে ভাড়া বেশি হওয়ার বিষয়টি স্বীকারও করেছে প্রদীপ। এজন্য তিনি গাড়ির বেশি দামকে কারণ হিসেবে দেখান।

এর আগে বাংলাদেশে প্রথম বর্ষপূর্তিতে উবার ভারত ও দক্ষিণ এশিয়ার প্রেসিডেন্ট অমিত জৈন এবং পূর্ব ভারত ও ঢাকার জেনারেল ম্যানেজার অর্পিত মুন্দ্রা এক সংবাদ সম্মেলনে কথা বলেন।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, শুধু নভেম্বরেই দুই লাখ মানুষ উবারের সেবা নিয়েছেন। প্রতি মাসে ১০ হাজারেরও বেশি চালক এবং প্রতিদিন শত শত চালক উবারে যোগ দিচ্ছেন। আর নভেম্বরে ১৫ লাখ বার উবার ডাকা হয়েছে বলে জানানো হয়।

এরই মধ্যে ‘উবারপ্রিমিয়ার’ এবং বাইক শেয়ারিং সেবা ‘উবারমোটো’ চালু করেছে।

যুক্তরাষ্ট্রের সান ফ্রান্সিসকোভিত্তিক পরিবহন প্রযুক্তি বিষয়ক প্রতিষ্ঠান উবার টেকনোলজিস বর্তমানে বিশ্বের ৬৩৩টি শহরে সেবা দিচ্ছে। তবে তথ্য চুরির বড় ধরনের ঘটনায় সমালোচিত হচ্ছে প্রতিষ্ঠানটি।

গত বছর পাঁচ কোটি ৭০ লাখ চালক ও যাত্রীর তথ্য চুরির তথ্য গোপনের খবর প্রকাশের পর সম্প্রতি এর তিনজন শীর্ষ কর্মকর্তা পদত্যাগ করেছেন।

এ প্রসঙ্গে প্রদীপ পরমেশ্বরন বলেন, তাদের প্রধান নির্বাহী এরই মধ্যে বলেছেন, যা ঘটেছে তা ঠিক হয়নি এবং এটা একটা ভুল ছিল।

Pin It