ইসরায়েলের `রাজধানী’ জেরুজালেম: স্বীকৃতি না দিতে যুক্তরাষ্ট্রকে অনুরোধ জর্দানের

israel

যুক্তরাষ্ট্র এ ঘোষণা দিলে তা আরব ও মুসলিম বিশ্বে ব্যাপক ক্ষোভ সৃষ্টি করবে বলে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসনকে বলেছেন বলে জানিয়েছেন জর্ডানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আয়মান সাফাদি, খবর বিবিসি’র।

নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পূরণ করতে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প শিগগিরই জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেবেন, এমন ধারণা বাড়ছে বলে খবর পশ্চিমা গণমাধ্যমের।

কিন্তু ট্রাম্পের জামাতা ও তার মধ্যপ্রাচ্য বিষয়ক উপদেষ্টা জ্যারেড কুশনার জানিয়েছেন, এখনও এ ধরনের কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি।

সোমবার ভোরে এক টুইটে সাফাদি বলেছেন, “জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়ার বিপজ্জনক পরিণতির বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী রেক্স টিলারসনের সঙ্গে কথা বলেছি। এ ধরনের সিদ্ধান্ত আরব ও মুসলিম বিশ্বজুড়ে ক্ষোভ সৃষ্টি করবে, উত্তেজনা বৃদ্ধিতে ইন্ধন যোগাবে ও শান্তি প্রচেষ্টাকে ঝুঁকিতে ফেলবে।”

তার এ টুইটের বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রকাশ্য কোনও প্রতিক্রিয়া জানায়নি।

বিবিসি জানিয়েছে, এ ধরনের কোনও ঘোষণা না দেওয়ার জন্য ট্রাম্পকে বোঝাতে আন্তর্জাতিক সমর্থন যোগাড় করার চেষ্টা করছেন ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস।

আব্বাসের দপ্তর জানিয়েছে, রোববার তিনি ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রো ও তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিজেপ তায়িপ এরদোয়ানসহ বেশ কয়েকজন বিশ্ব নেতাকে ফোন করেছেন।

আব্বাসের উপদেষ্টা মাজেদি আল খালেদি জানিয়েছেন, জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দিতে যুক্তরাষ্ট্রে দূতাবাস সেখানে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত হলে যে ঝুঁকি তৈরি হবে তা ব্যাখ্যা করতে বিশ্ব নেতাদের ফোন করেছিলেন আব্বাস।

যুক্তরাষ্ট্র এ সিদ্ধান্ত নিলে তা ফিলিস্তিন সমস্যার ‍দ্বি-রাষ্ট্রীক সমাধানকে হুমকির মুখে ফেলবে বলে ফিলিস্তিনি নেতারা আগেই সতর্ক করেছেন।

Pin It